1. admin@sylheterkujkhobor.com : admin :
মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০৪:৪৭ অপরাহ্ন

চৌকিদেখীতে ব্যবসায়ী অপহরণের চেষ্টা: থানায় অভিযোগ

  • আপডেট সময় : বৃহস্পতিবার, ৩ জুন, ২০২১
  • ১৭৮ বার পঠিত

সিলেটের খোজখবর ডেস্কঃ সিলেটে মামলার জের ধরে এক ব্যবসায়ীকে অপহরণের চেষ্টা করা হয়েছে। অপহরণ করতে না পেরে তার কাছে থাকা লাখ টাকা ছিনিয়ে নিয়েছে প্রতিপক্ষ সন্ত্রাসীরা। বুধবার (২মে) সন্ধ্যায় নগরের চৌকিদেখী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এসএমপি’র এয়ারপোর্ট থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।
অভিযোগে প্রকাশ- এসএমপি’র এয়ারপোর্ট থানার সাহেব বাজার এলাকাধীন ধোপাগুলের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আলহাজ্জ নাসির উদ্দিনের সাথে নগরের চৌকিদেখী রংধনু- ১০২-এর কামরুল হাসান জুয়েলের জায়গা জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। এ বিরোধের জের ধরে কামরুল ও তার সহযোগীরা গত ২৩ এপ্রিল নাসিরদের উপর সন্ত্রাসী হামলা চালায়। এ ঘটনায় নাসির উদ্দিন গত ২৪ এপ্রিল এয়ারপোর্ট ধানায় একটি মামলা করেন। এ মামলায় জামিন নিয়ে কামরুল ও তার সহযোগীরা আরো বেপরোয়া হয়ে ওঠে। তারা আলহাজ্জ নাসিরকে অপহরণ ও গুম করার চেষ্টা করতে থাকে। এক পর্যায়ে গত ২ মে নাসির উদ্দিনকে ফের অপহরণের চেষ্টা করে কামরুল চক্র।

জানা যায়- ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন বুধবার (২মে) তার গাড়ি মেরামতের উদ্দেশ্যে চৌকিদেখীস্থ একটি ওয়ার্কশপে যান। মেরামত শেষে ফেরার পথে চৌকিদেখীস্থ ৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ফরহাদ চৌধুরী শামীমের অফিসের সামনে পৌছামাত্র তিনটি মোটর সাইকেল যোগে আসা কামরুল ও তার সহযোগীরা নাসির উদ্দিনের প্রাইভেট কারের গতিরোধ করে তাকে অপহরণে চেষ্টা চালায়। এসময় তারা  নাসির উদ্দিন ও তার সঙ্গে থাকা মানিক মিয়া এবং কার চালক বাবুল মিয়াকে মারধর করে এবং নাসির উদ্দিনের সাথে থাকা একলাখ টাকা ছিনিয়ে নেয়। তাদের শোর-চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে কামরুল  ও তার সহযোগীরা তাদের ছেড়ে পালিয়ে যায়। এ ঘটনায়  নাসির উদ্দিন এসএমপি’র এয়ারপোর্ট থানায় ৬ জনকে অভিযুক্ত করে একটি এজাহার দাখিল করেন। এজাহারভুক্তরা  হচ্ছে এয়ারপোর্ট থানাধীন চৌকিদেখী রংধনু ১০২ এর মুক্তা মিয়ার পুত্র কামরুল হাসান জুয়েল এবং তার ভাই সোহেল ও  রাসেল। একই থানার সাহেব বাজার এলাকাধীন ধোপাগুলের মৃত নূরুল ইসলামের পুত্র রুমেল ও ইব্রাহিম এবং মুহিবুর রহমান সোলেমানের পুত্র ফুয়াদ। এজাহার দায়েরের খবর পেয়ে কামরুল ও তার সহযোগীরা পলাতক থেকে ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিনকে অপহণের চেষ্টা অব্যাহত রেখেছে বলে অভিযোগে প্রকাশ।

এয়ারপোর্ট থানার এসআই খোকন দাস অভিযোগ প্রাপ্তির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান- ঘটনার তদন্ত চলছে।  প্রাথমিক তথ্যের সত্যতা পাওয়া গেলে মামলা রেকর্ডে নিয়ে আসামীদের গ্রেফতার করা হবে বলে জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© All rights reserved © 2021 sylheter kuj khobor.com
Theme Customized By BreakingNews