1. admin@sylheterkujkhobor.com : admin :
বুধবার, ১৮ মে ২০২২, ০৯:১৫ পূর্বাহ্ন

সিলেটে ওসমানী মেডিক্যাল ফঠকে নাজিম হত্যা : দুজনকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব

সিলেটের খোঁজখবর
  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ১২ এপ্রিল, ২০২২
  • ২৪৮ বার পঠিত

সিলেটে এমএজি ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ইমার্জেন্সি গেইটের সামনে শনিবার (৯ এপ্রিল) রাতে নাজিম আহমদ (১৯) খুনের ঘটনায় দুই আসামিকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)-৯। এর আগে একজনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

মামলার ৩ ও ৮ নং আসামিকে রবিবার (১০ এপ্রিল) সিলেট নগরী থেকে গ্রেফতার করে র‍্যাব। পরে সোমবার (১১ এপ্রিল) তাদের কোতোয়ালি থানায় হস্তান্তর করা হয়।

বিষয়টি সোমবার দিবাগত রাত দেড়টার সময় গণমাধ্যম-কে নিশ্চিত করেন সিলেট কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মুহাম্মদ আলী মাহমুদ।

র‍্যাবের হাতে গ্রেফতারকৃত দুজন হলেন- সিলেট নগরীর সুবিদবাজার এলাকার বনকলাপাড়ার সোহাগ (২১) ও সিলেট সদর উপজেলার মুন্সিপাড়া গ্রামের আফসার হোসেনের ছেলে সানি (১৮)।

শনিবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে ওসমানী হাসপাতালের ইমার্জেন্সি গেইটের সামনে ছুরিকাঘাতে যুবক খুন হন নাজিম আহমদ। সিনিয়র-জুনিয়র নিয়ে কথা কাটাকাটির জেরে এ হত্যাকাণ্ড ঘটে। নাজিম পেশায় হোটেল শ্রমিক ছিলেন। তিনি সুনামগঞ্জের ধর্মপাশার নুর মিয়ার ছেলে। তিনি নগরীর দরগা মহল্লা এলাকার বাসিন্দা ছিলেন।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্র জানায়, রাত সাড়ে নয়টার সময় সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ইমার্জেন্সি গেইটের সামনে কয়েকজন যুবকের তর্কাতর্কির এক পর্যায়ে নাজিমকে উপর্যুপরি ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায় ঘাতকরা। এরপর ওই রাতেই নগরীর মুন্সিপাড়া এলাকার মীর কাশেমের ছেলে জুয়েল আহমদকে গ্রেফতার করে কোতোয়ালি থানাপুলিশ। পরদিন (রোববার ) বিকেলে জুয়েলকে আদালতে হাজির করে ৭ দিনের রিমান্ড চাইলে আদালত ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এদিকে ছেলে হত্যার ঘটনায় বাদি হয়ে রবিবার বিকেলে কোতোয়ালি থানায় মামলা করেছেন নাজিমের পিতা নুর মিয়া। মামলার এজাহারে আসামি করা হয়েছে ১০ জনকে। এছাড়াও অজ্ঞাত আসামি রয়েছেন ৭-৮ জন।

কোতয়ালি থানার ওসি মোহাম্মদ আলী মাহমুদ বলেন, এ ঘটনায় মোট ৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এ হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকা সবাইকে গ্রেপ্তার করতে চেষ্টা অব্যাহত আছে।




Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরও খবর










x